রিজাল ব্যাংককে পৃথিবী থেকেই বিদায় করে দেব : অর্থমন্ত্রী

RCBC-03.png

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশ ব্যাংকের চুরি যাওয়া রিজার্ভের অর্থ ফেরত পেতে ফিলিপাইনের রিজাল ব্যাংকের বিরুদ্ধে মামলার বিষয়ে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাথে আলোচনা করা হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। ক্ষুদ্ধ অর্থমন্ত্রী রিজাল ব্যাংককে পৃথিবী থেকে বিদায় করে দেয়ার হুমকি দিয়ে বলেন, অনুরোধে সাড়া না দেয়ায় এবার ব্যাংকটির বিরুদ্ধে মামলা করবে বাংলাদেশ। শিশু একাডেমিতে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল রিজার্ভ থেকে বাংলাদেশ ব্যাংকের চুরি যাওয়া রিজার্ভের ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার ফিলিপাইনের রিজাল কমার্শিয়াল করপোরেশন, আরসিবিসির পাঁচটি অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে বেরিয়ে যায়। এর মধ্যে গেল বছরের শেষ দিকে দেড় কোটি ডলারের মত ফেরত পেয়েছে বাংলাদেশ। বাকি পৌনে সাত কোটি ডলার ফেরত পেতে রিজাল ব্যাংককে অনুরোধ করেও কোন সাড়া পায়নি বাংলাদেশ।

চুরি যাওয়া অর্থ ফেরত পেতে ফিলিপাইন সরকার আশ্বাস দিলেও তার অগ্রগতি না হওয়ায় এবার ব্যাংকটির বিরুদ্ধে মামলা করার দিকে হাঁটতে যাচ্ছে বাংলাদেশ ব্যাংক। একথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত জানিয়েছেন, ফিলিপাইন সরকারের আশ্বাস পেয়ে এতোদিন মামলার দিকে যায়নি তার মন্ত্রণালয়। এবার হয়তো সেই পথেই যেতে হবে। এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাথে শিগগিরই কথা বলার কথা জানিয়েছেন তিনি। ক্ষুব্ধ অর্থমন্ত্রী বলেন, রিজাল ব্যাংককে পৃথিবী থেকে বিদায় করে দেয়া হবে।

অর্থ ফেরত দিতে বাংলাদেশের অনুরোধে সাড়া না দিয়ে রিজার্ভ চুরিতে নিজেদের কোন দায় নেই বলে শুরু থেকেই সাফাই গেয়ে আসছে রিজাল ব্যাংক। উল্টো রিজার্ভ চুরির দায় বাংলাদেশের ঘাড়ে চাপিয়ে বিবৃতিও দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। এমন পরিস্থিতিতে আর অপেক্ষা না করে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংক ফেডারেল রিজার্ভ ও সুইফট নেটওয়ার্ককে সাথে নিয়ে মামলা করতে চায় বাংলাদেশ ব্যাংক। তবে এই দুই প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশের সাথে থাকবে কীনা তা এখনো নিশ্চিত নয়।

Share this post

scroll to top