যে কোনো সময়ে আলোচনায় বসতে প্রস্তুত উত্তর কোরিয়া

নিজস্ব প্রতিবেদক : উত্তর কোরিয়া বলেছে, তারা এখনো যে কোনো সময় যেকোনো ধরনের আলোচনার জন্য প্রস্তুত। উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উনের সঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তার পূর্বনির্ধারিত বৈঠক বাতিল করার পর এ কথা বলেছে পিয়ংইয়ং। ট্রাম্পের সিদ্ধান্তকে চরম দু:খজনক বলে অভিহিত করেছেন উত্তর কোরিয়ার উপপররাষ্ট্রমন্ত্রী কিম কেই-ওয়ান।

কিম জং-উনের সঙ্গে বৈঠক বাতিলের কারণ হিসেবে উত্তর কোরিয়ার প্রকাশ্য শত্রুতার কথা উল্লেখ করেছেন ট্রাম্প। আগামি ১২ জুন সিঙ্গাপুরে কিম জং-উনের সঙ্গে ট্রাম্পের বৈঠক হওয়ার কথা ছিল।

যুক্তরাষ্ট্রের কোনো ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে উত্তর কোরিয়ার কোনো নেতার প্রথম বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার একটা সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। কিন্তু গতকাল বৃহস্পতিবার কিমের কাছে পাঠানো চিঠিতে পূর্বনির্ধারিত বৈঠকটি বাতিলের সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেওয়া হয়।

বৈঠকে কোরীয় উপদ্বীপের পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ ও উত্তেজনা প্রশমনের বিষয়টি গুরুত্ব পেতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছিল। ট্রাম্পের ঘোষণার কয়েক ঘণ্টা আগেই উত্তর কোরিয়া জানায়, তারা তাদের প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী পুঙ্গি-রি নামের পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্র ধ্বংস করেছে।

কিমের কাছে পাঠানো ট্রাম্পের চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘আপনার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য উদ্গ্রীব ছিলাম। তবে দু:খজনক হলো আপনার সাম্প্রতিক বিবৃতিতে তীব্র ক্ষোভ ও প্রকাশ্য শত্রুতার বিষয়টি প্রকাশিত হওয়ায় আমি মনে করছি, এই সময়ে দীর্ঘ পরিকল্পিত বৈঠকটি করা সঠিক হবে না।’

ট্রাম্পের ঘোষণার পর দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জে-ইন বলেছেন, ট্রাম্প-উন বৈঠক বাতিল হওয়ার বিষয়টি গভীর হতাশাজনক।

print