বিপিএল হারালো তার একমাত্র হ্যাটট্রিক চ্যাম্পিয়ন ক্যাপ্টেনকে

mash.jpg

স্পোর্টস রিপোর্টার : এই প্রথম বিপিএল পেতে যাচ্ছে নতুন কোন চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ককে। আগের তিনবারের চ্যাম্পিয়ন মাশরাফি শেষ চারে পা না দিয়েই শেষ করলেন এবারের বিপিএল। শেষ চার ম্যাচে টানা জয় নিয়ে মাথা উঁচু করেই মাঠ ছাড়লেন মাশরাফি। গ্রুপ পর্ব থেকে বাদ পড়া নিয়ে অবশ্য কোন আফসোস নেই তার।

সংবাদ সম্মেলনে আফসোসের প্রশ্ন উঠতেই হেসে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের অধিনায়ক দিলেন স্বভাবসুলভ উত্তর। ‘এবার দেখে শান্তি পাবো। শেষ তিনবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছি। অবশ্যই ভালো লেগেছে। এবার আমাদেরই সতীর্থ কেউ হবে। এখানে আফসোসের কিছু নেই। এ ধরনের টুর্নামেন্টে এমনই হয়। আর অবশ্যই উপভোগ করবো। বিশেষ করে সেমিফাইনাল ও ফাইনাল ম্যাচটি। ‍তিনটি সেমিফাইনাল হবে। একটা ফাইনাল হবে। পুরোটাই উপভোগ করব।’

বিপিএলের তৃতীয় আসরে নতুন দল হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছিল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস। দলটা সেবার তারা ভালোও গড়েনি। কিন্তু অধিনায়ক মাশরাফি আনকোড়া একটা দল নিয়েই কুমিল্লাকে গতবার শিরোপা এনে দিয়েছিলেন। চোটের কারণে বেশ কয়েকটি ম্যাচে ব্যাট, বল না করে শুধু নেতৃত্বগুণ দিয়েই দলকে টেনে নিয়ে গিয়েছিলেন গতবার। কিন্তু এবার প্রথম পাঁচ ম্যাচে টানা হেরে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার স্বপ্নটা তার আগেই উবে যায়। এ অবস্থায় এবারের আসর শেষে মাশরাফির কেমন লাগছে? এবারই তো প্রথম ফাইনাল আর শিরোপা ছাড়াই এলেন সংবাদ সম্মেলনে।

‘গত আসরের মতো সব সময় হবে না। তবে অনুভূতি একই। সেবারও জিতে এসেছিলাম। এবারও জিতেই এসেছি। আমরা টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে গেছি। তবে ভালো লাগছে যে আমরা অন্তত শেষ দিকে এসে জয়ের ধারায় ফিরতে পেরেছি। শুরু থেকে আমরা টুর্নামেন্টে কোথাও ছিলাম না। আমরা পাঁচ-ছয়টা ম্যাচ পর্যন্ত সবার নিচে ছিলাম। শেষ পর্যন্ত ষষ্ঠ অবস্থানে থাকলেও ১০টা পয়েন্ট নিয়ে শেষ করতে পেরেছি। আমি মনে করি, খেলোয়াড়দের সবারই খুব ভালো লাগছে।’

প্রথম পাঁচ ম্যাচে হারের পর চট্টগ্রামে গিয়ে ষষ্ঠ ম্যাচে জয়ের দেখা পাবার পর আবার দুই ম্যাচে হার। সবমিলিয়ে ৮ ম্যাচে ১ জয় পাওয়া দলটি শেষ চার ম্যাচে জয় নিয়ে ১০ পয়েন্ট পেয়ে গ্রুপ পর্ব ছয় নম্বরে থাকলো। আরও একটি ম্যাচ জিতলেই সেরা চারে যাওয়া যেত। এ নিয়ে কোনও আফসোস কাজ করছে কীনা সেই প্রশ্নে মাশরাফি বলেন, ‘পরিষ্কারভাবে বোঝা যাচ্ছে, আর একটা ম্যাচ জিততে পারলে হতে পারতো। আবার হয়তো দেখা যেতো ফাইনালে, একটা ম্যাচ জিতলে। আফসোস করে তো কোনো লাভ নেই। আমরা পারিনি এটা অবশ্যই হতাশার।’

বিপিএল এবার আগেই হারালো তার একমাত্র চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ককে। তবে এবার নতুন যে অধিনায়কের হাতেই শিরোপাটা উঠুক না কেন মাশরাফিই হয়ে থাকবেন যে কোনো ফ্রাঞ্চাইজি লিগের একমাত্র হ্যাটট্রিক চ্যাম্পিয়ন অধিনায়ক।

Share this post

scroll to top